Home » উত্তরের খবর » রাজশাহীতে কমছে পানি, ভাঙছে পদ্মার তীর
রাজশাহীতে কমছে পানি, ভাঙছে পদ্মার তীর

রাজশাহীতে কমছে পানি, ভাঙছে পদ্মার তীর

নিজস্ব প্রতিবেদক ০

কমতে শুরু করেছে পদ্মার পানি। সেই সঙ্গে ভাঙতে শুরু করেছে রাজশাহীর বিভিন্ন এলাকার পদ্মার পাড়। নগরীর টি গ্রোয়েন এলাকায় পদ্মার পাড়ে এলাকায় বাঁধ দেবে গেছে। এই এলাকায় জিও ব্যাগ ফেলে ভাঙন ঠেকানোর কাজ করতে দেখা গেছে।

 

রাজশাহী পাউবোর গেজ রিডার এনামুল হক জানান,  রাজশাহীতে গত ২৪ ঘণ্টা পদ্মার পানি কমেছে ৩২ সেন্টিমিটার। রোববার দুপুর ১২টায় ছিলো ১৫ দশমিক ৫০ সেন্টিমিটার। আজ সোমবার দুপুর ১২ টায় পদ্মার পানি রাজশাহী সিমান্দে দাঁড়িয়েছে ১৫ দশমিক ১৮ সেন্টিমিটার। আর সকালে ছিলো ১৫ দশমিক ২৪ সেন্টিমিটার।

 

পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহি প্রকৌশলী মোখলেসুর রহমান বলেন, এই ভাঙ্গন সাময়িক। পানি কমে গেলে এমন ছোটখাট ভাঙন দেখা দেয়। এর জন্য পর্যাপ্ত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। যাতে আরো বড় আকারের ভাঙন না দেখা দেয়। বন্যার পূর্বাভাষ অনুযায়ি এবার পদ্মায় পানি বাড়ার সম্ভাবনা নেই।

গোদাগাড়ী পৌর এলাকার সুলতাগঞ্জ এলাকার পদ্মা ও মাহানন্দা নদীর মিলনস্থলে কিছুটা ভাঙ্গন দেখা দিয়েছে। এছাড়া চর আষাড়িয়াদহ ইউনিয়ন। এর আগে গত বৃহস্পতিবার গোদাগাড়ী উপজেলার চর আষাড়িয়াদহ ইউনিয়নের পদ্মানদীর ভাঙ্গন কবলিতদের সাহায্যার্থে ৮ মন ৩ কেজি চাউল বিতরণ করা হয়েছে। গোদাগাড়ী উপজেলার চর আষাড়িয়াদহ ইউনিয়নের হঠাৎ পদ্মা নদীর পানি বৃদ্ধির ফলে প্রায় ৭০টি বাড়ী ঘর বিলীন হয়ে যায়।
উপজেলার টাঙ্গন সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়, সাহাপুর মসজিদ, পিরোজপুর ও রাওথা এলাকা রয়েছে সব চেয়ে বেশী হুমকির মুখে।

উপজেলার ইউসুফপুর ইউপি চেয়ারম্যান শফিউল আলম রতন জানান, দীর্ঘদিন ধরে ইউনিয়নের বেশীর ভাগ অংশ পদ্মার ভাঙ্গনে বিলিন হয়ে গেছে। আবার নতুন করে পদ্মায় পানি বৃদ্ধির ফলে দেখা দিয়েছে ভাঙন। দেখা দিয়েছে ভিটে মাটি হারানোর আশঙ্কা। টাঙ্গন সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ও সাহাপুর এলাকার একটি মসজিদসহ কয়েক হাজার বাড়ী-ঘর এখন রয়েছে হুমকির মুখে। এছাড়াও উপজেলার রাওথা এলাকায় ভাঙন দেখা দিয়েছে।

বাংলার কথা/বুলবুল আহমেদ/২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*