Home » উত্তরের খবর » ২৫৫ প্রজাতির বনসাই নিয়ে প্রদর্শনী শুরু
২৫৫ প্রজাতির বনসাই নিয়ে প্রদর্শনী শুরু

২৫৫ প্রজাতির বনসাই নিয়ে প্রদর্শনী শুরু

নিজস্ব প্রতিবেদক ০

রাজশাহীতে ৫ শতাধিক বনসাই নিয়ে চার দিনব্যাপী বনসাই প্রদর্শনী শুরু হয়েছে। বৃহস্পতিবার (২০ সেপ্টেম্বর) বিকেলে নগরীর সিঅ্যান্ডবি মোড়ের মনিবাজার চত্বরে সিটি মেয়র এএইচএম খায়রুজামান লিটন এই প্রদর্শনীর উদ্বোধন করেন। এবারের বনসাই প্রদর্শনী রাজশাহী বনসাই সোসাইটির ১৯তম বার্ষিক আয়োজন।

 

 

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, ‘আগামীতে রাজশাহী হবে প্রাণবন্ত-প্রাণোচ্ছ্বল শহর, সবুজ শহর। নতুন নতুন পার্ক হবে, রাস্তাঘাট সুন্দর হবে, ঝকঝকে-তকতকে সবুজ শহর হবে। যথাযথ পরিকল্পনায় উন্নয়নের মাধ্যমে রাজশাহীকে বিশ্বের সেরা শহর করা সম্ভব। একাজে সবার সহযোগিতা প্রয়োজন।’

 

মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, ২০০৮ থেকে ২০১৩ সাল পর্যন্ত আমি মেয়র থাকাকালে রাজশাহী ছিল প্রাণবন্ত, ঝকঝকে-তকতকে শহর। কিন্তু গত ৫ বছরে সব ম্লান হয়ে গেছে। আপনাদের সকলের সহযোগিতায় আমি আবারো মেয়র নির্বাচিত হয়েছি, আগামীতে রাজশাহীতে সাংস্কৃতিক সন্ধ্যা হবে, খেলাধূলা হবে, নাটক হবে-সব মিলিয়ে এই শহর হবে প্রাণবন্ত শহর। মানুষ থাকবে হাসিখুশি। মানুষের মানসিক প্রশান্তির জন্যে গানবাজনা হবে, পদ্মার পাড়ে গিয়ে পদ্মার সৌন্দর্য ও নির্মল বাতাস উপভোগ করবে মানুষ।

 

 

রাজশাহী বনসাই সোসাইটির সভাপতি সৈয়দ মাহফুজ-ই-তৈাহিদ টিটুর সভাপতিত্বে উদ্বোধীন অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের অবসরপ্রাপ্ত অধ্যাপক কবি জুলফিকার মতিন, বনসাই সোসাইটির সাধারণ সম্পাদক সারোয়ার মোর্শেদ প্রমুখ।

 

উদ্বোধীন অনুষ্ঠানের আলোচনা সভার আগে ফিতা কেটে প্রদর্শনীর উদ্বোধন করেন মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন। এরপর বিভিন্ন প্রজাতির বনসাই ঘুরে দেখেন মেয়রসহ অন্যান্য অতিথিরা।

 

 

রাজশাহী বনসাই সোসাইটির ১৯তম এই প্রদর্শনীতে সোসাইটির ৬০ জন সদস্যর ২৫৫টি বনসাই স্থান পেয়েছে। গাছগুলোর মধ্যে রয়েছে, দেশি বট, পাইকর, লাইকর, শ্যাওড়া, ঘুর্নিবীচি, তমাল, বৈচি, জিলাপী, তেঁতুল ও কামিনী। এছাড়া ফাইকাস প্রজাতির মধ্যে রয়েছে বেনজামিনা, রেচুসা, রামফি, লংআইল্যান্ড, গোল্ডেন ও ভাইরেন্স। এছাড়াও রয়েছে বাগান বিলাস, বাওবাব, জেড, চায়নাবট, থাইচেরি, কতবেল ও রঙ্গনের মতো দেশি-বিদেশি অনেক গাছ।

 

আয়োজকরা জানান, প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত বনসাই প্রদর্শনী সবার জন্য উন্মুক্ত থাকবে।

 

বাংলার কথা/সেপ্টেম্বর ২১, ২০১৮

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*