Today December 13, 2017, 1:56 am |
Home » উত্তরের খবর » রংপুর রেঞ্জের ১৬ পুলিশ কর্মকর্তাকে সম্মননা পদক প্রদান

রংপুর রেঞ্জের ১৬ পুলিশ কর্মকর্তাকে সম্মননা পদক প্রদান

রংপুর অফিস ০

রংপুর রেঞ্জে জুন মাসের আইন-শৃঙ্খলা স্বাভাবিক, চোরাচালান ও মাদক প্রতিরোধ, আসামী তামিলসহ অন্যান্য কার্যকলাপ বিশ্লেষন করে ১৬ পুলিশ সদস্যকে সম্মননা পদক প্রদান করা হয়েছে। আজ শনিবার সকালে ডিআইজি কনফারেন্স রুমে পুলিশ সদস্যদের এই পুরষ্কার তুলে দেন রংপুর রেঞ্জে’র ডিআইজি খন্দকার গোলাম ফারুক বিপিএম, পিপিএিম।

পুরষ্কার প্রাপ্তরা হলেন: শ্রেষ্ঠ জেলা পুলিশ সুপার রংপুরের মিজানুর রহমান পিপিএম, শ্রেষ্ঠ সার্কেল রংপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার এ-সার্কেল মোঃ সাইফুর রহমান, শ্রেষ্ঠ থানা রংপুর কোতয়ালী, শ্রেষ্ঠ কমিউনিটি পুলিশিং ইউনিট দিনাজপুর কোতয়ালী থানা পুলিশিং ইউনিট, শ্রেষ্ঠ কোর্ট অফিসার রংপুরের কোর্ট পুলিশ পরিদর্শক মনোজ কুমার রায়, শ্রেষ্ঠ ট্রাফিক অফিসার লালমনিরহাটের সার্জেন্ট মোঃ আল ফরিদ, শ্রেষ্ঠ ডিবি অফিসার কুড়িগ্রামের পুলিশ পরিদর্শক মোঃ মাহফুজার রহমান, শ্রেষ্ঠ মামলা তদন্তকারী অফিসার গাইবান্ধার বোনারপাড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের আইসি পুলিশ পরিদর্শক মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান, কুড়িগ্রামের উলিপুর থানার এসআই মোঃ তোজাম্মেল হক, রংপুরের ডিবি এসআই মোঃ বাবুল ইসলাম, দিনাজপুর জেলার ডিবি এসআই মোঃ রেজাউল করিম, দিনাজপুরের বীরগঞ্জ থানার এসআই মোঃ ফিরোজ কবির, শ্রেষ্ঠ এসআই কুড়িগ্রামের উলিপুর থানার মোঃ আতাউর রহমান প্রধান, শ্রেষ্ঠ ওয়ারেন্ট তামিলকারী অফিসার রংপুর কোতয়ালী থানার এএসআই মোঃ আবু বক্কর ছিদ্দিক, শ্রেষ্ঠ মাদক ও চোরাচালান মালামাল উদ্ধারকারী অফিসার কুড়িগ্রামের উলিপুর থানার এসআই মোঃ আতাউর রহমান প্রধান এবং শ্রেষ্ঠ এএসআই রংপুর কোতয়ালী থানার এএসআই মোঃ আবু বক্কর ছিদ্দিক। প্রতি মাসের মাসিক সভায় পুলিশ সদস্যদের উৎসাহ দিতে ঐ মাসের কার্যকলাপ বিশ্লেষন করে ১৬ ক্যাটাগরিতে এ সম্মননা পুরস্কার প্রদান করা হয়।

এ সময় ডিআইজি খন্দকার গোলাম ফারুক সন্ত্রাসী ও মাদক ব্যবসায়ীদের কোন ছাড় না দিয়ে জনগণকে সাথে নিয়ে এ বিষয়ে সামাজিক প্রতিরোধ গড়ে তোলার জন্য পুলিশ সদস্যদের আহবান জানিয়ে বলেন জনগনের জানমালের নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণে পুলিশের দায়িত্ব গুরুত্বপূর্ণ। সন্ত্রাসীর বড় পরিচয় অপরাধী। এরা দেশের শত্রু, মানুষের শত্রু। এদের বিরুদ্ধে আরো কঠোর হতে হবে। এসময় তিনি যুব সমাজকে ধ্বংসের হাত থেকে দূরে রাখতে মাদক ব্যবসায়ী ও মাদককে জিরো টলারেন্সে আনতে সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহ্বান জানান।

তিনি আরো বলেন, মাদকের বিচরণ বেড়েছে। এসব কঠোর হস্তে রোধ করতে হবে। আমাদের সন্তান, যুব সমাজ আজ পথভ্রষ্ট। তাদের সুন্দর ভবিষ্যতের কথা ভেবে মাদককে জিরো টলারেন্সে আনতে হবে।

এর আগে রংপুর রেঞ্জের কার্যক্রম নিয়ে মাসিক আইন শৃঙ্খলা ও অপরাধ পর্যালোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় বিভাগের আট জেলার পুলিশ সুপারসহ উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

বাংলার কথা/তিতাস আলম/১৫ জুলাই ২০১৭

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি: ড. প্রদীপ কুমার পান্ডে
সম্পাদক: শ.ম সাজু
সহকারী সম্পাদক (রংপুর বিভাগ): তিতাস আলম
২০৯ (৩য় তলা), বোয়ালিয়া থানার মোড়, কুমারপাড়া, রাজশাহী। ফোন: ০১৯২৭-৩৬২৩৭৩, ই-মেইল: banglarkotha.news@gmail.com